• ঢাকা বুধবার
    ২৯ মে, ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

পিটার হাস নিয়ে দিল্লির কূটনীতিকের মন্তব্যেকে হেসে উড়িয়ে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র

প্রকাশিত: এপ্রিল ৯, ২০২৪, ১২:২৮ পিএম

পিটার হাস নিয়ে দিল্লির কূটনীতিকের মন্তব্যেকে হেসে উড়িয়ে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

বাংলাদেশের দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনের সময় ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাস গা ঢাকা দিয়েছিলেন। দিল্লির দুই কূটনীতিক এ সংক্রান্ত যে দাবি করেছিলেন তা উড়িয়ে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার  এক প্রশ্নের জবাবে তাদের অবস্থান পরিষ্কার করেন।

গত ২৮ শে মার্চ দিল্লির থিংক ট্যাংক অবজার্ভার রিসার্চ ফাউন্ডেশনের এক অনুষ্ঠানে ঢাকায় ভারতের সাবেক হাইকমিশনার পিনাক রঞ্জন চক্রবর্তী দাবি করেছিলেন যে, দিল্লির হস্তক্ষেপে পিটার হাস নির্বাচনের সময় গা ঢাকা দিয়েছিলেন। নিজের লেখা বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে পিনাক রঞ্জন বলেন,  আমি নিশ্চিতভাবে বলতে পারি ভারতের পক্ষ থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে কড়া বার্তা জানিয়ে দেয়া হয়। যার পরিণতিতে পিটার হাস লোকচক্ষুর আড়ালে চলে যান। এর আগে আমরা দেখেছি, পিটার হাস কখনো অমুক বিএনপি নেতাকে বাড়িতে ডেকে আনছিলেন বা বিএনপি নেতাদের বাসায় গিয়ে হাজির হচ্ছিলেন। কিন্তু নির্বাচনকালে কোথায় যে গা ঢাকা দিলেন তা তিনি নিজেই জানেন। এই অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতের সাবেক হাইকমিশনার বীণা সিক্রিও বক্তব্য রাখেন।

সোমবার (যুক্তরাষ্ট্র সময় ৮ এপ্রিল) স্টেট ডিপার্টমেন্টের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে রাষ্ট্রদূত পিনাক রঞ্জনের এমন মন্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার হাস্যরসের সঙ্গে বিষয়টিকে উড়িয়ে দেন। এ ধরনের অভিযোগ সঠিক নয় বলে উল্লেখ করেন তিনি।

ভারতের রাষ্ট্রদূতের মন্তব্যের দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করে স্টেট ডিপার্টমেন্টের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে একজন সাংবাদিক জানতে চান, ভারতের চাপের কারণে বাংলাদেশের ৭ জানুয়ারির একতরফা নির্বাচনের পূর্ব মুর্হূতে ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত গা ঢাকা দিয়েছিলেন বলে নয়াদিল্লিতে একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে সম্প্রতি মন্তব্য করেছেন ঢাকায় হাই কমিশনারের দায়িত্ব পালন করে যাওয়া এক ভারতের কূটনীতিক । সত্যি কী তাই ঘটেছিলে?

জবাবে মুখপাত্র মিলার বলেন, নয়াদিল্লিত বইয়ের মোড়ক উন্মোচনের সবগুলো অনুষ্ঠান আমি অনুস্মরণ করি না! তবে আপনার প্রশ্নের উত্তর হচ্ছে- না, এটা সঠিক নয়। এসময় এপির করেসপন্ডেট ম্যাথিউ লি জানতে চান, কেন ফলো করছেন না?

জবাবে মিলার বলেন, আমার আরও অনেক বিষয় পড়ে রয়েছে। যেগুলো নিয়ে ব্যস্ত থাকাটা ভালো মনে করি।

উল্লেখ্য, গত ২৮ মার্চ দিল্লির থিংক ট্যাংক ‘অবজার্ভার রিসার্চ ফাউন্ডেশনে’ নিজের বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে পিনাক রঞ্জন বলেন, "আমি নিশ্চিতভাবে বলতে পারি— ভারতের পক্ষ থেকে তখন এই কড়া বার্তাটা যুক্তরাষ্ট্রকে শুনিয়ে দেওয়া হয়েছিল।

 

আর্কাইভ