• ঢাকা বুধবার
    ০১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, ১৮ মাঘ ১৪২৯

২৫ জনকে গুলি, রিমান্ড শেষে কারাগারে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা

প্রকাশিত: জানুয়ারি ২৩, ২০২৩, ০৮:৫৩ পিএম

২৫ জনকে গুলি, রিমান্ড শেষে কারাগারে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা

সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার সয়দাবাদ ইউনিয়নের বাঐতারা গ্রামে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের সময় ২৫ জনকে গুলি করার অভিযোগে করা মামলায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আরিফকে রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। সোমবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুরে তাকে আদালতে হাজির করা হলে বিচারক তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এর আগে আরিফকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ। রোববার (২২ জানুয়ারি) চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে শুনানি শেষে বিচারক এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। ওই দিনই তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সদর থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) সৌমিক ইসলাম হৃদয় বলেন, বাঐতারা গ্রামে তুচ্ছ ঘটনায় সংঘর্ষের জেরে নিয়ম বহির্ভূতভাবে লাইসেন্স করা বন্দুক বের করে গুলি ছোড়া হয়। এতে গুলিবিদ্ধ হন ২৫ জন। এছাড়া ঘটনার সময় একাধিক অস্ত্র ব্যবহারের অভিযোগ উঠলে সে বিষয়েও আরিফকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সোমবার আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত ৯ জানুয়ারি দুপুরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বাঐতারা গ্রামের আলম হোসেন ও রুবেল গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ, ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ইটপাটকেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে। একপর্যায়ে রুবেল গ্রুপের পক্ষে জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক আরিফ তার লাইসেন্স করা বন্দুক দিয়ে গুলি ছুড়লে ২৫ জন গুলিবিদ্ধ হন। এ সময় আহত হন আরও ছয়জন।

সংঘর্ষে বৈধ ও অবৈধ মিলে চারটি আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার হয়েছে বলে অভিযোগ ওঠে। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক আরিফকে আটক এবং একটি একলানা বন্দুক, একটি এয়ারগান, অব্যবহৃত গুলি ও গুলির খোসা জব্দ করে। সংঘর্ষের ঘটনায় উভয় পক্ষ থেকে দুটি এবং পুলিশের পক্ষ থেকে অস্ত্র আইনে একটি মামলা করা হয়।  

আর্কাইভ