• ঢাকা বুধবার, ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৩০ ভাদ্র ১৪২৯

‘স্বাস্থ্য নিয়ে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা সহ্য করবো না’

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২২, ১২:৪৬ পিএম

‘স্বাস্থ্য নিয়ে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা সহ্য করবো না’

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা

সরকারি বলেন আর বেসরকারি বলেন ন্যূনতম স্বাস্থ্য সেবা যদি না থাকে, সেই প্রতিষ্ঠান মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করবে— সেটা আমরা সহ্য করতে পারবো না বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আহমেদুল কবির। শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সকালে শিশুদের করোনা ভ্যাকসিন কার্যক্রম সংক্রান্ত জাতীয় কর্মশালায় সিভিল সার্জনদের উদ্দেশে তিনি একথা বলেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচি (ইপিআই) ইউএসএআইডির ‘মামনি’ ও নবজাতক স্বাস্থ্যসেবা উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় (ইপিআই) এই কর্মশালা আয়োজন করে।

অধ্যাপক ডা. আহমেদুল কবির বলেন, ‘অনিবন্ধিত ক্লিনিক এবং যারা প্রতারণা করছে স্বাস্থ্য সেবার নামে সেগুলো কিন্তু প্রায় সবই বন্ধ করে দিয়েছি এবং বলেছি যে অনিবন্ধিত কোনও ক্লিনিক বাংলাদেশে থাকতে পারবে না। এটি একটি খুবই প্রিমেটিভ কাজ, তবে তার মানে এই নয় আমরা খুব ভালো কাজ করে ফেলেছি। যদি কেউ নিবন্ধন নম্বর তাদের প্রতিষ্ঠানে না টানিয়ে রাখেন তাহলে অনিবন্ধিত হিসেবেই ধরে নেওয়া হবে।’

স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক বলেন, ‘আমরা আপনাদের খুব স্ট্রং মেসেজ দিতে চাই। আপনাদের জেলায় কোনও অনিবন্ধিত ক্লিনিক থাকতে পারবে না। এটি একটি পরিষ্কার বার্তা। অনিবন্ধিত ক্লিনিকের অস্তিত্ব বাংলাদেশের মাটিতে থাকতে পারবে না। প্রতিপক্ষ যত শক্তিশালী হোক। দ্বিতীয়ত নিবন্ধিত ক্লিনিক মানেই মানুষের সেবা করছে, সেটাও বলার সুযোগ নেই। ইতোমধ্যে আমি হাসপাতাল শাখার পরিচালককে বলেছি, স্বাস্থ্য সেবার ক্যাটাগরাইজেশন করার জন্য একটি স্ট্যান্ডার্ড সেটআপ তৈরি করতে।’

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত রয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব ড. মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেন হাওলাদার, স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এ বি এম খুরশীদ আলম, এমএনসিএইচ লাইন ডিরেক্টর ও পরিচালক ডা শামসুল হক প্রমুখ।

জেডআই/

আর্কাইভ