• ঢাকা মঙ্গলবার
    ১৬ এপ্রিল, ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১

সরকারি অনুদানের টাকা ফেরত দিলেন জয়া

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২৪, ০৩:৪৭ পিএম

সরকারি অনুদানের টাকা ফেরত দিলেন জয়া

বিনোদন ডেস্ক

দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান। অভিনয়ের পাশাপাশি প্রযোজক হিসেবে দেখা যায় তাকে। ‘দেবী’ সিনেমার মধ্য দিয়ে প্রযোজনা শুরু করেন অভিনেত্রী। এরপরই ২০২০-২১ অর্থবছরে ‘রইদ’ সিনেমা তৈরির ঘোষণা দেন।

সিনেমা নির্মাণের জন্য তিনি ৬০ লাখ টাকার সরকারি অনুদান পেয়েছিলেন। সিনেমাটি পরিচালনা করবেন ‘হাওয়া’ খ্যাত নির্মাতা মেজবাউর রহমান সুমন।

বিষয়টি নিয়ে ইতিমধ্যেই গণমাধ্যমে কথা বলেছেন মেজবাউর রহমান সুমন। এবার মুখ খুললেন জয়া। তার কথা, ‘যে কারণেই হোক নির্মাণ প্রক্রিয়া বিলম্ব হচ্ছে। সুমনকে বারবার তাগাদা দিয়েছি। এদিকে অনুদানের অর্থ নিয়ে সিনেমা নির্মাণ না করাটা আমার কাছে অশোভন মনে হয়েছে, তাই টাকা ফেরত দিয়েছি।’

অনুদানের টাকা ফেরত দেওয়া প্রসঙ্গে ইতিমধ্যেই সুমন বলেছেন, ‘কাস্টিং ও লোকেশন ঠিক করা, আমার নিজের ব্যস্ততা- সব মিলিয়ে কাজটি শুরু করতে দেরি হচ্ছে। আমরা আরও দুই বছর আগে অনুদান পেয়েছি। এত দিনে সিনেমাটি জমা দেওয়ার সময়ও শেষ হয়ে গেছে। যথাসময়ে সিনেমা নির্মাণ ও জমা দিতে না পারায় আগেও সমালোচিত হয়েছেন অনেকেই। জয়া কিংবা আমি সেই সমালোচনার মুখে পড়তে চাই না। তাই অনুদানের টাকা ফেরত দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। পরিস্থিতি বিবেচনা করে দেখেছি, সিনেমাটি শেষ করতে আমাদের আরও সময় লাগতে পারে।’

জয়া সরে দাঁড়ালেও পর্দায় আসবে ‘রইদ’। আর এটি নির্মিত হবে সুমনের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ফেসকার্ড থেকে। কিছুটা দেরি হলেও ‘রইদ’ সিনেমার শুটিং শেষ করবেন বলে জানান ‘হাওয়া’র এই নির্মাতা।

জানা গেছে, চলচ্চিত্র শিল্পে মেধা ও সৃজনশীলতাকে উৎসাহিত করার লক্ষ্যে প্রতিবছর সরকারি অনুদান প্রদান করা হয়। ২৩৮টি আবেদন যাচাই-বাছাই শেষে ২০২০-২১ অর্থবছরে মোট ২০টি পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে অনুদান দেওয়া হয়। প্রায় ১৩ কোটি টাকা এসব সিনেমায় বরাদ্দ দেওয়া হয়।

আর্কাইভ